ঢাকা ০৯:১১ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ৮ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
ই-পেপার দেখুন

পাসপোর্ট নাগরিক অধিকার,নিজের পাসপোর্ট নিজেই করেছি।

সরাসরি পাসপোর্ট অফিসে এসে আমার পাসপোর্ট আমি নিজেই করেছি। কোন ধরনের দালাল ধরিনি। যারা সেবা প্রদান করছেন তারা খুব ভালো মনের । এমনভাবে সবকিছু বুঝিয়ে দিয়েছেন যেন নিজের আপনজন। যথাসময়ে ওনারা আমার কাজটি পরিচ্ছন্নভাবে করে দিয়েছেন। চট্টগ্রাম নগরীর পাঁচলাইশ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের একজন সেবা গ্রহীতা মাসুদুর রহমান খান এমনটি জানিয়েছেন।

সরকারী নির্দেশনা মেনে চলছে সেবা আদান-প্রদান। হজ্জ যাত্রীদের বিশেষ সেবা প্রদানের জন্য বসানো হয়েছে হজ্জ সেবা বুথ। পাসপোর্ট অফিসে সেবা প্রত্যাশীদের সেবা সহজীকরণ ও যথাযথ সেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে নিয়মিত কাজ করছেন ফরম জমার কর্মকর্তা মো মোস্তাগীর আলম( উচ্চমান সহকারী), অন্যজন সুমন তালুকদার( একাউন্টিং সহকারী) সহ অন্যান্য কর্মচারী ও কর্মকর্তাবৃন্দ।

চট্টগ্রাম পাঁচলাইশ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের জমা কাউন্টার ১০২ কক্ষে কর্মরত সুমন তালুকদার( একাউন্টিং সহকারী) বলেন, সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে যা কিছু প্রয়োজন সব প্রদক্ষেপ আমাদের এখানে গ্রহন করা হয়েছে। গ্রাহকদের সুবিধার্তে তথ্য কেন্দ্র, হেল্প ডেস্ক স্থাপন করা হয়েছে প্রতিবন্ধি, মুক্তিযোদ্ধা, অসুস্থব্যাক্তি ও বয়স্কদের বিশেষ সেবা দিয়ে থাকি, যেখানে অফিস বন্ধের আগ পর্যন্ত গ্রাহকদের তথ্য প্রদান করার পাশাপাশি সুবিন্যস্ত ভাবে ফাইল তৈরি করে দিচ্ছেন বুথের দায়িত্বরত ব্যাক্তি।

অধিকাংশ সাধারণ গ্রাহক পাসপোর্ট করার করতে গেলে দালালের সহযোগীতা প্রয়োজন দালালদের এই উৎপীড়ন বন্ধে কি প্রদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে এমন প্রশ্নের জবাবে কক্ষের অন্য কর্মকর্তা উচ্চমান সহকারী মো মোস্তাগীর আলম বলেন পাসপোর্ট করার ক্ষেত্রে দালালের কোন সহযোগীতা প্রয়োজন নেই। আমাদের এখানে নোটিশ বোর্ডে অনেক তথ্য দেওয়া আছে এবং গ্রাহকরা বর্তমানে অনলাইনেও সেবা পাচ্ছেন যেখানে দালালের কোনপ্রকার যোগসূত্র বিহীন গ্রাহকরা তাদের সেবা নিশ্চিত করতে পারছেন।

দালালদের অনুপ্রবেশ বন্ধে পাঁচলাইশ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের উপ-পরিচালক মাসুম হাসান সেখানে নিয়োজিত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে সর্বাত্মক সতর্কতা অবলম্বন করার জন্য বলেছেন এবং নিজেই এই বিষয়টি তদারকি করেন বলে জানান এই কর্মকর্তা।

ট্যাগস :

আপনার মতামত লিখুন

পাসপোর্ট নাগরিক অধিকার,নিজের পাসপোর্ট নিজেই করেছি।

আপডেট সময় ০৫:১৪:২৮ অপরাহ্ন, রবিবার, ৩ জুলাই ২০২২

সরাসরি পাসপোর্ট অফিসে এসে আমার পাসপোর্ট আমি নিজেই করেছি। কোন ধরনের দালাল ধরিনি। যারা সেবা প্রদান করছেন তারা খুব ভালো মনের । এমনভাবে সবকিছু বুঝিয়ে দিয়েছেন যেন নিজের আপনজন। যথাসময়ে ওনারা আমার কাজটি পরিচ্ছন্নভাবে করে দিয়েছেন। চট্টগ্রাম নগরীর পাঁচলাইশ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের একজন সেবা গ্রহীতা মাসুদুর রহমান খান এমনটি জানিয়েছেন।

সরকারী নির্দেশনা মেনে চলছে সেবা আদান-প্রদান। হজ্জ যাত্রীদের বিশেষ সেবা প্রদানের জন্য বসানো হয়েছে হজ্জ সেবা বুথ। পাসপোর্ট অফিসে সেবা প্রত্যাশীদের সেবা সহজীকরণ ও যথাযথ সেবা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে নিয়মিত কাজ করছেন ফরম জমার কর্মকর্তা মো মোস্তাগীর আলম( উচ্চমান সহকারী), অন্যজন সুমন তালুকদার( একাউন্টিং সহকারী) সহ অন্যান্য কর্মচারী ও কর্মকর্তাবৃন্দ।

চট্টগ্রাম পাঁচলাইশ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের জমা কাউন্টার ১০২ কক্ষে কর্মরত সুমন তালুকদার( একাউন্টিং সহকারী) বলেন, সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে যা কিছু প্রয়োজন সব প্রদক্ষেপ আমাদের এখানে গ্রহন করা হয়েছে। গ্রাহকদের সুবিধার্তে তথ্য কেন্দ্র, হেল্প ডেস্ক স্থাপন করা হয়েছে প্রতিবন্ধি, মুক্তিযোদ্ধা, অসুস্থব্যাক্তি ও বয়স্কদের বিশেষ সেবা দিয়ে থাকি, যেখানে অফিস বন্ধের আগ পর্যন্ত গ্রাহকদের তথ্য প্রদান করার পাশাপাশি সুবিন্যস্ত ভাবে ফাইল তৈরি করে দিচ্ছেন বুথের দায়িত্বরত ব্যাক্তি।

অধিকাংশ সাধারণ গ্রাহক পাসপোর্ট করার করতে গেলে দালালের সহযোগীতা প্রয়োজন দালালদের এই উৎপীড়ন বন্ধে কি প্রদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে এমন প্রশ্নের জবাবে কক্ষের অন্য কর্মকর্তা উচ্চমান সহকারী মো মোস্তাগীর আলম বলেন পাসপোর্ট করার ক্ষেত্রে দালালের কোন সহযোগীতা প্রয়োজন নেই। আমাদের এখানে নোটিশ বোর্ডে অনেক তথ্য দেওয়া আছে এবং গ্রাহকরা বর্তমানে অনলাইনেও সেবা পাচ্ছেন যেখানে দালালের কোনপ্রকার যোগসূত্র বিহীন গ্রাহকরা তাদের সেবা নিশ্চিত করতে পারছেন।

দালালদের অনুপ্রবেশ বন্ধে পাঁচলাইশ আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিসের উপ-পরিচালক মাসুম হাসান সেখানে নিয়োজিত আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে সর্বাত্মক সতর্কতা অবলম্বন করার জন্য বলেছেন এবং নিজেই এই বিষয়টি তদারকি করেন বলে জানান এই কর্মকর্তা।