ঢাকা শুক্রবার, ৩০শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১৫ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
Logo আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা সুষ্ঠুভাবে উদযাপনের লক্ষ্যে সিএমপির বিশেষ ব্রিফিং Logo সাংবাদিক মুহাম্মদ মহিউদ্দিনের পিতার ইন্তেকাল Logo প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন উদযাপন করেছেন বোয়ালখালী উপজেলা আওয়ামী লীগ Logo প্রধানমন্ত্রীর ৭৬ তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে গৃহহীনকে ঘর করে দিলেন যুবলীগ নেতা Logo লেবু বিক্রি করে সংসার ও মেয়ের চিকিৎসা করেন অন্ধ শকু Logo শাহছূফী হযরত আবদুল মাবুদ আলকাদেরী‘র পবিত্র  বার্ষিক ওরশ মোবারক যথাযোগ্য মর্যাদায় সম্পন্ন  Logo ৮দিন পর সচল ডেমু ট্রেন Logo সৈয়দ খাজা ইউসুফ আহমদ শাহ আল চিশতী আল খিতাপচরি ৪৪ তম বার্ষিক ওরস শরিফ মহা-সমারোহে অনুষ্ঠিত Logo আজ বোয়ালখালীতে আল্লামা আব্দুল মাবুদ (র.)’র ৩৬ তম বার্ষিক ওরশ শরীফ Logo বোয়ালখালীতে পরীক্ষা কেন্দ্রে অভিভাবকদের বসার ব্যবস্থা করলেন আমুচিয়া শেখ রাসেল স্মৃতি সংসদ

মহানবী হযরত মুহাম্মদ (দ:) সম্পর্কে কটুক্তিকারীদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি-সৈয়দ নজিবুল বশর

ই-পেপার দেখুন >>> ই-পেপার দেখুন >>>

মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে কটুক্তিকারীদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি জানান সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারি

গত ১৩ জুন বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন বিটিএফ এর সম্মানিত চেয়ারম্যান জাতীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারী বাংলাদেশ ভারতীয় নিযুক্ত হাইকমিশনার বিক্রম কুমার দোরাইস্বামীর সাথে সাক্ষাত করেন।

মাননীয় সাংসদ বলেন মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে সম্প্রতি ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি)-র কিছু কর্মকর্তার বিবৃতি সম্পর্কে তার গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেন ও দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি করেন। তবে, সেই কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করায় তিনি ভারত সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন এবং ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে শক্তিশালী, বন্ধুত্বপূর্ণ, ঐতিহাসিক এবং আধ্যাত্মিক সম্পর্কের ব্যাপারে জোর দিয়েছেন।

হাই কমিশনার বিক্রম কুমার দোরাইস্বামী বলেন জনাব সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারীকে আশ্বস্ত করেন যে, মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)-কে নিয়ে কতিপয় ব্যক্তির করা টুইট ও মন্তব্য গুলো ভারত সরকার বা সেই ব্যক্তিদের নিজ রাজনৈতিক দলের মতাদর্শকে প্রতিফলিত করেনা। ভারতীয় জনতা পার্টি ৫ জুন ২০২২ তারিখে তাদের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে লিখিত আকারে এই মন্তব্যগুলির স্পষ্ট নিন্দা জানায়।

তারা উভয়েই একমত হন যে, ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে বিদ্যমান অনন্য বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের বিরুদ্ধে কিছু কুচক্রী মহল কাজ করছে, যারা এই অবমাননাকর মন্তব্যগুলিকে ব্যবহার করে জনগণকে উস্কে দেয়ার চেষ্টা করছে।

মাননীয় সাংসদ আরও বলেন, মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষের ও পাকিস্থানের স্বপক্ষের শক্তিগুলো এই ঘটনাটিকে দেশের মধ্যে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে ব্যবহার করার চেষ্টা করছে।

ভারত-বাংলাদেশ বন্ধুত্বের এই নিরবিচ্ছিন্ন সংহতির নিদর্শন হিসেবে, জনাব সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারী বলেন ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে বিদ্যমান বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের গুরুত্ব নিশ্চিত করে বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন কর্তৃক প্রকাশিত প্রেস বিবৃতির একটি কপি হস্তান্তর করেন এবং জোর দিয়ে বলেন যে, মুক্তিযুদ্ধ বিরোধী যে কোন শক্তিকে দুই দেশের মধ্যে এই ভ্রাতৃত্বের চেতনাকে ব্যাহত করতে দেওয়া যাবে না।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা সুষ্ঠুভাবে উদযাপনের লক্ষ্যে সিএমপির বিশেষ ব্রিফিং

মহানবী হযরত মুহাম্মদ (দ:) সম্পর্কে কটুক্তিকারীদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি-সৈয়দ নজিবুল বশর

আপডেট সময় ০৭:২৮:২৪ অপরাহ্ণ, মঙ্গলবার, ১৪ জুন ২০২২

মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে কটুক্তিকারীদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি জানান সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারি

গত ১৩ জুন বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন বিটিএফ এর সম্মানিত চেয়ারম্যান জাতীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারী বাংলাদেশ ভারতীয় নিযুক্ত হাইকমিশনার বিক্রম কুমার দোরাইস্বামীর সাথে সাক্ষাত করেন।

মাননীয় সাংসদ বলেন মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে সম্প্রতি ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি)-র কিছু কর্মকর্তার বিবৃতি সম্পর্কে তার গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেন ও দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি করেন। তবে, সেই কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করায় তিনি ভারত সরকারকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন এবং ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে শক্তিশালী, বন্ধুত্বপূর্ণ, ঐতিহাসিক এবং আধ্যাত্মিক সম্পর্কের ব্যাপারে জোর দিয়েছেন।

হাই কমিশনার বিক্রম কুমার দোরাইস্বামী বলেন জনাব সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারীকে আশ্বস্ত করেন যে, মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)-কে নিয়ে কতিপয় ব্যক্তির করা টুইট ও মন্তব্য গুলো ভারত সরকার বা সেই ব্যক্তিদের নিজ রাজনৈতিক দলের মতাদর্শকে প্রতিফলিত করেনা। ভারতীয় জনতা পার্টি ৫ জুন ২০২২ তারিখে তাদের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে লিখিত আকারে এই মন্তব্যগুলির স্পষ্ট নিন্দা জানায়।

তারা উভয়েই একমত হন যে, ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে বিদ্যমান অনন্য বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের বিরুদ্ধে কিছু কুচক্রী মহল কাজ করছে, যারা এই অবমাননাকর মন্তব্যগুলিকে ব্যবহার করে জনগণকে উস্কে দেয়ার চেষ্টা করছে।

মাননীয় সাংসদ আরও বলেন, মুক্তিযুদ্ধের বিপক্ষের ও পাকিস্থানের স্বপক্ষের শক্তিগুলো এই ঘটনাটিকে দেশের মধ্যে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে ব্যবহার করার চেষ্টা করছে।

ভারত-বাংলাদেশ বন্ধুত্বের এই নিরবিচ্ছিন্ন সংহতির নিদর্শন হিসেবে, জনাব সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারী বলেন ভারত ও বাংলাদেশের মধ্যে বিদ্যমান বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের গুরুত্ব নিশ্চিত করে বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন কর্তৃক প্রকাশিত প্রেস বিবৃতির একটি কপি হস্তান্তর করেন এবং জোর দিয়ে বলেন যে, মুক্তিযুদ্ধ বিরোধী যে কোন শক্তিকে দুই দেশের মধ্যে এই ভ্রাতৃত্বের চেতনাকে ব্যাহত করতে দেওয়া যাবে না।