ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম
Logo সাংবাদিক মুহাম্মদ মহিউদ্দিনের পিতার ইন্তেকাল Logo প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিন উদযাপন করেছেন বোয়ালখালী উপজেলা আওয়ামী লীগ Logo প্রধানমন্ত্রীর ৭৬ তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে গৃহহীনকে ঘর করে দিলেন যুবলীগ নেতা Logo লেবু বিক্রি করে সংসার ও মেয়ের চিকিৎসা করেন অন্ধ শকু Logo শাহছূফী হযরত আবদুল মাবুদ আলকাদেরী‘র পবিত্র  বার্ষিক ওরশ মোবারক যথাযোগ্য মর্যাদায় সম্পন্ন  Logo ৮দিন পর সচল ডেমু ট্রেন Logo সৈয়দ খাজা ইউসুফ আহমদ শাহ আল চিশতী আল খিতাপচরি ৪৪ তম বার্ষিক ওরস শরিফ মহা-সমারোহে অনুষ্ঠিত Logo আজ বোয়ালখালীতে আল্লামা আব্দুল মাবুদ (র.)’র ৩৬ তম বার্ষিক ওরশ শরীফ Logo বোয়ালখালীতে পরীক্ষা কেন্দ্রে অভিভাবকদের বসার ব্যবস্থা করলেন আমুচিয়া শেখ রাসেল স্মৃতি সংসদ Logo বোয়ালখালীতে ৬ কেন্দ্রের অভিভাবকদের বসার ব্যবস্থা করলেন এমপি মোছলেম

মাগুরায় বারোমাসি থাই আম চাষে সাফল্য

ই-পেপার দেখুন >>> ই-পেপার দেখুন >>>
  • বার্তা কক্ষ ::
  • আপডেট সময় ১০:৫২:১৮ অপরাহ্ণ, রবিবার, ১৫ আগস্ট ২০২১
  • ৬৩৭ বার পঠিত

কালেরপত্র ডেষ্ক :

মাগুরায় বারোমাসি থাই আম চাষে সাফল্য পেয়েছেন সদর ও শালিখা উপজেলার কয়েকজন যুবক। অসময়ে আম বাজারজাত হওয়ায় দামও অনেক বেশি পাওয়া যায়। জেলায় এ আম চাষের সাফল্যের ফলে সারাদেশে ছড়িয়ে পড়ছে থাই জাতের আমের চাষ।

এই অসময়ে মাগুরার কয়েকটি আম বাগানে থোকায় থোকায় ঝুঁলছে আম। এ আম পাকতে পাকতেই গাছে দেখা যাবে আমের নতুন গুটি। সদর উপজেলার কয়েকটি স্থানে থাই বারোমাসি জাতের আম বাগানে দেখা যাচ্ছে এ দৃশ্য

আম চাষি কাশেম হোসেন জাগো নিউজকে বলেন, ২০১৮ সালের দিকে তিনি পরীক্ষামূলকভাবে নিজের জমিতে থাই বারোমাসি আমগাছ রোপণ করেন। একসময় গাছগুলোতে আম আসতে শুরু করে। আম সুস্বাদু হওয়ায় ভোক্তাদের আগ্রহ ও চাহিদা বাড়ায় দামও বাড়তে থাকে। অসময়ে এসব আম ২০০ থেকে ৫০০ টাকা কেজি দরেও বিক্রি হয়ে থাকে বলে জানান তিনি।

শালিখার কয়েকজন আম চাষি জানান, বর্তমানে এক বিঘা জমিতে আমের চাষ করতে প্রাথমিক পর্যায়ে ৫০ হাজার টাকা খরচ হয়। যা থেকে বছরে ৪ থেকে ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত আয় করা সম্ভব বলে জানান চাষিরা।

মাগুরা হর্টিকালচার সেন্টারের উদ্যানতত্ত্ববিদ রোকনুজ্জামান জানান, মাগুরা জেলায় প্রায় ৯০ বিঘা জমিতে বারোমাসি থাই আমের চাষ হচ্ছে। একটি গাছ থেকে বছরে তিনবার আম সংগ্রহ করা যায়। এ আম পাকলেও প্রাকৃতিক উপায়েই দীর্ঘ সময় সংরক্ষণ করা যায় বলেও জানান এ কৃষি কর্মকর্তা।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

সাংবাদিক মুহাম্মদ মহিউদ্দিনের পিতার ইন্তেকাল

মাগুরায় বারোমাসি থাই আম চাষে সাফল্য

আপডেট সময় ১০:৫২:১৮ অপরাহ্ণ, রবিবার, ১৫ আগস্ট ২০২১

কালেরপত্র ডেষ্ক :

মাগুরায় বারোমাসি থাই আম চাষে সাফল্য পেয়েছেন সদর ও শালিখা উপজেলার কয়েকজন যুবক। অসময়ে আম বাজারজাত হওয়ায় দামও অনেক বেশি পাওয়া যায়। জেলায় এ আম চাষের সাফল্যের ফলে সারাদেশে ছড়িয়ে পড়ছে থাই জাতের আমের চাষ।

এই অসময়ে মাগুরার কয়েকটি আম বাগানে থোকায় থোকায় ঝুঁলছে আম। এ আম পাকতে পাকতেই গাছে দেখা যাবে আমের নতুন গুটি। সদর উপজেলার কয়েকটি স্থানে থাই বারোমাসি জাতের আম বাগানে দেখা যাচ্ছে এ দৃশ্য

আম চাষি কাশেম হোসেন জাগো নিউজকে বলেন, ২০১৮ সালের দিকে তিনি পরীক্ষামূলকভাবে নিজের জমিতে থাই বারোমাসি আমগাছ রোপণ করেন। একসময় গাছগুলোতে আম আসতে শুরু করে। আম সুস্বাদু হওয়ায় ভোক্তাদের আগ্রহ ও চাহিদা বাড়ায় দামও বাড়তে থাকে। অসময়ে এসব আম ২০০ থেকে ৫০০ টাকা কেজি দরেও বিক্রি হয়ে থাকে বলে জানান তিনি।

শালিখার কয়েকজন আম চাষি জানান, বর্তমানে এক বিঘা জমিতে আমের চাষ করতে প্রাথমিক পর্যায়ে ৫০ হাজার টাকা খরচ হয়। যা থেকে বছরে ৪ থেকে ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত আয় করা সম্ভব বলে জানান চাষিরা।

মাগুরা হর্টিকালচার সেন্টারের উদ্যানতত্ত্ববিদ রোকনুজ্জামান জানান, মাগুরা জেলায় প্রায় ৯০ বিঘা জমিতে বারোমাসি থাই আমের চাষ হচ্ছে। একটি গাছ থেকে বছরে তিনবার আম সংগ্রহ করা যায়। এ আম পাকলেও প্রাকৃতিক উপায়েই দীর্ঘ সময় সংরক্ষণ করা যায় বলেও জানান এ কৃষি কর্মকর্তা।